Yoga and Meditative Asanas | দৈনন্দিন ১০ মিনিটের যোগাভ্যাস নিয়ন্ত্রণে রাখবে ডায়াবেটিস! কোন কোন যোগাসন করবেন?

Tuesday, October 10 2023, 9:39 am
highlightKey Highlights

যোগাসন বা ধ্যানমূলক আসন প্রতিকার করতে পারে ডায়াবেটিস। সহজ পদ্ধতিতে যোগব্যায়ামের মাধ্যমে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে থাকবে।


ডায়াবেটিস (Diabetes) একটি দীর্ঘস্থায়ী শারীরিক অসুস্থতা যা বিশ্বব্যাপী লক্ষ লক্ষ মানুষকে প্রভাবিত করে। এটি ঘটে যখন শরীর পর্যাপ্ত ইনসুলিন (Insulin) তৈরি করতে পারে না বা রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে কার্যকরভাবে ব্যবহার করতে পারে না। উচ্চ রক্তে শর্করার মাত্রা হৃদরোগ, কিডনি ব্যর্থতা, স্নায়ুর ক্ষতি এবং দৃষ্টিশক্তি হ্রাসের মতো গুরুতর জটিলতার কারণ হতে পারে।

ডায়াবেটিস রোগীরা চিকিৎসার জন্য নানান ঔষধ খেয়ে থাকেন। অনেকের কর্মব্যস্ত জীবনের ফলে নিজের প্রতি বিশেষ খেয়াল রাখা সম্ভব হয়না। তবে খাদ্যাভাস ঠিক করে এবং কিছু সহজ পদ্ধতিতেই ডায়াবেটিস  নিয়ন্ত্রণে এমনকি এই রোগ থেকে সুস্থ্যও হওয়া যায়। যোগাসন (Yoga), ধ্যানমূলক আসন (Meditative Asanas)  দ্বারা রক্তচাপ কমাতে, রক্ত সঞ্চালন উন্নত করতে এবং ইনসুলিন সংবেদনশীলতা বাড়াতে সাহায্য করে, যার ফলে এই শারীরিক ব্যায়ামকে ডায়াবেটিস এর প্রতিকারের (Cure For Diabetes) এক উপায়ও বিবেচিত করা হয়।

যোগাসন, ধ্যানমূলক আসন রক্তচাপ কমাতে, রক্ত সঞ্চালন উন্নত করতে এবং ইনসুলিন সংবেদনশীলতা বাড়াতে সাহায্য করে
যোগাসন, ধ্যানমূলক আসন রক্তচাপ কমাতে, রক্ত সঞ্চালন উন্নত করতে এবং ইনসুলিন সংবেদনশীলতা বাড়াতে সাহায্য করে

ডায়াবেটিস কি? । What Is Diabetes?

ডায়াবেটিস হল একটি মাল্টি ফ্যাক্টরিয়াল ডিসঅর্ডার (Multifactorial Disorder) যা সঠিক ব্যায়ামের অভাব, অনুপযুক্ত খাদ্যাভ্যাস ইত্যাদির ফলে ঘটে। এর পাশাপাশি আধুনিক, কর্মব্যস্ত জীবনের  'স্ট্রেস'ও ডায়াবেটিস হওয়ার কারণ (Cause Of Diabetes) হয়ে উঠেছে। রক্তে শর্করা বা চিনির মাত্রা অত্যধিক পরিমাণে বৃদ্ধি পেলে  বা অসামঞ্জস্যতা দেখা দিলে  যে পরিস্থিতিগুলি তৈরী হয় এক কথায় তাকেই 'ডায়বেটিস' বলে। শরীরে অগ্ন্যাশয় যখন পর্যাপ্ত পরিমাণে ইনসুলিন উৎপাদন করতে না পারে অথবা শরীর যদি উৎপন্ন ইনসুলিন ব্যবহার করতে অক্ষম হয়, তখন ডায়াবেটিস রোগ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। ইনসুলিনের সাহায্যে  দেহের কোষগুলো রক্ত থেকে গ্লুকোজ গ্রহণ করতে  সমর্থ হয় কিন্তু এই প্রক্রিয়ার ব্যাঘাত ঘটলে রক্তে গ্লুকোজের পরিমাণ বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে  যার ফলস্বরূপ শরীরের বাড়তে পারে জটিলতা এবং দেহের বিভিন্ন যন্ত্র বিকল হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনাও বেড়ে যায়।

রক্তে শর্করা বা চিনির মাত্রা অত্যধিক পরিমাণে বৃদ্ধি পেলে  বা অসামঞ্জস্যতা দেখা দিলে  যে পরিস্থিতিগুলি তৈরী হয় এক কথায় তাকেই 'ডায়বেটিস' বলে
রক্তে শর্করা বা চিনির মাত্রা অত্যধিক পরিমাণে বৃদ্ধি পেলে বা অসামঞ্জস্যতা দেখা দিলে যে পরিস্থিতিগুলি তৈরী হয় এক কথায় তাকেই 'ডায়বেটিস' বলে

ডায়াবেটিসের প্রতিকার হিসেবে যোগাসন বা ধ্যানমূলক আসন । Yoga or Meditative Asanas as a Remedy for Diabetes :

 যোগাসন (Yoga) বা ধ্যানমূলক আসনের (Meditative Asanas) উপকারিতা অপরিসীম। শারীরিক স্বাস্থ্যের উন্নতির সঙ্গে মানসিক স্বাস্থ্যেরও উন্নতি করে এই শারীরিক ব্যায়াম। বহু জানা  অজানা রোগ থেকেও লড়াই করতে সাহায্য করে শরীরকে। এই রোগের মধ্যে রয়েছে ডায়াবেটিসও। চিকিৎসক মহলের দাবি, ডায়াবেটিস এর প্রতিকার (Remedy for Diabetes) হিসেবে যোগব্যায়াম বা আসন খুব উপকারী।

যোগাসন শারীরিক স্বাস্থ্যের উন্নতির সঙ্গে মানসিক স্বাস্থ্যেরও উন্নতি করে
যোগাসন শারীরিক স্বাস্থ্যের উন্নতির সঙ্গে মানসিক স্বাস্থ্যেরও উন্নতি করে

যোগব্যায়ামের অনুশীলন আমাদের শ্বাস নিয়ন্ত্রণ করা এবং  শ্বাস-কার্যের দিকে মনোযোগ দেওয়া শেখায়। এটি চাপ এবং উদ্বেগের লক্ষণগুলি হ্রাস করে। যোগব্যায়ামের মাধ্যমে কীভাবে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করা যায় তা শেখার পাশাপাশি, স্ট্রেসের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করতেও শেখায়। ফলে অবশেষে রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা কমে যায়। দৈনন্দিন ৪৫-৫০ মিনিটের জন্য যোগব্যায়াম করলে সর্বাধিক সুবিধা পাওয়া যায়। যোগব্যায়ামের বিভিন্ন আসনের সময় যে শিথিলকরণ প্রতিক্রিয়া তৈরি হয়, তা রক্তে কর্টিসল (স্ট্রেস হরমোন) এর মাত্রা কমিয়ে দেয়। কর্টিসল সরাসরি রক্তচাপ এবং রক্তে শর্করাকে প্রভাবিত করে। ফলে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে থাকে। 

যোগব্যায়ামের অনুশীলন আমাদের শ্বাস নিয়ন্ত্রণ করা এবং  শ্বাস-কার্যের দিকে মনোযোগ দেওয়া শেখায়
যোগব্যায়ামের অনুশীলন আমাদের শ্বাস নিয়ন্ত্রণ করা এবং শ্বাস-কার্যের দিকে মনোযোগ দেওয়া শেখায়

ডায়াবেটিসের জন্য কিছু সেরা যোগাসন (Yoga) বা ধ্যানমূলক আসন (Meditative Asanas) শরীরের  হরমোনের ভারসাম্য বজায় রাখতে, প্রদাহ কমাতে এবং অগ্ন্যাশয়কে আরও ইনসুলিন তৈরি করতে উদ্দীপিত করতে সাহায্য করে। দেখে নিন ডায়াবেটিস এর প্রতিকার (Remedy for Diabetes) হিসেবে কোন কোন যোগাসন বা ধ্যানমূলক আসন করবেন।

 আসন শরীরের  হরমোনের ভারসাম্য বজায় রাখতে, প্রদাহ কমাতে এবং অগ্ন্যাশয়কে আরও ইনসুলিন তৈরি করতে উদ্দীপিত করতে সাহায্য করে
 আসন শরীরের  হরমোনের ভারসাম্য বজায় রাখতে, প্রদাহ কমাতে এবং অগ্ন্যাশয়কে আরও ইনসুলিন তৈরি করতে উদ্দীপিত করতে সাহায্য করে

১. সূর্য নমস্কার । Surya Namaskar :

ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য অত্যন্ত উপকারী হল সূর্য নমস্কার। এটি হৃদস্পন্দন বাড়াতে এবং পুরো শরীরকে প্রসারিত করার একটি দারুন উপকারী পদ্ধতি। ওয়ার্ম-আপ হিসেবে রোজ  সূর্য নমস্কার করতে পারেন। এই যোগাসন (Yoga) বা ধ্যানমূলক আসন (Meditative Asanas) রক্তে শর্করার মাত্রা, রক্ত সঞ্চালন এবং নমনীয়তা বাড়ায়।

২. গোমুখাসন | Gomukhasana :

এই যোগাসনও ডায়াবেটিস রোগের জন্য অত্যন্ত কার্যকর। এটি করতে হলে প্রথমে মাটিতে বসে দুটি পা সামনে ছড়িয়ে দিতে হবে। এরপর বাম পা ঝাঁকিয়ে ডানদিকে উরুর পাশে এবং ডান পা ঝাঁকিয়ে বাঁ-পায়ে হাঁটুর উপরে রাখতে হবে। এরপর ডান হাত উপরে তুলে পিঠের পিছন দিকে নামিয়ে দিতে হবে। আর বাঁ হাত নিচ দিয়ে নিয়ে গিয়ে পিঠের পিছন দিকে রাখতে হবে, যাতে দুটি হাত পরস্পরকে আঁকড়ে ধরতে পারে। এরকম ভাবে কিছুক্ষন থাকার পর হাত ও পা বদল করে নিতে হবে পরের ধাপে।

৩. ধনুরাসন। Dhanurasana :

এই আসনটি মেরুদণ্ডের হাড়কে নমনীয় রাখে। মেরুদণ্ড-সংলগ্ন স্নায়ুমণ্ডলী ও তার সংলগ্ন পেশী সতেজ ও সক্রিয় রাখতে এই আসনটি প্রভূত সহায়ক । এই যোগাসন (Yoga) বা ধ্যানমূলক আসন (Meditative Asanas)নিয়মিত অভ্যাসের ফলে বুকের পেশী ও পাঁজরের হাড় বৃদ্ধিতে সাহায্য করে যার ফলে বুক সুগঠিত হয়। এছাড়াও এটি পেটের পেশী শক্তিশালী করে, কোষ্ঠকাঠিন্য কমায় এবং রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। এই আসনটি স্নায়ুজাল সবল ও সক্রিয় রাখে এবং পাকস্থলী, ক্ষুদ্রান্ত্র, বৃহদন্ত্র, প্লীহা, যকৃতের কাজ খুব ভালো হয় । দেহের মধ্যভাগের অপ্রয়োজনীয় মেদ দূর হয়, মনের চঞ্চলতা দূর করে এবং স্বভাবে ধৈর্য্য বৃদ্ধি করতেও এই আসনটি সহায়ক এবং কোন স্ত্রী-রোগ বা পেটের রোগ সহজে আক্রমণ করতে পারে না।

৪. পশ্চিমোত্তানাসন । Paschimottanasana :

এই আসনটি ডায়াবেটিস রোগীর জন্য খুব উপযোগী। এটি ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে, রক্তচাপ কমায়।  হাত, পা, পেট ও বস্তিপ্রদেশের পেশী ও স্নায়ুজাল সতেজ ও সক্রিয় রাখতে, জঠরাগ্নি বৃদ্ধি করতে, অজীর্ণ, কোষ্ঠবদ্ধতা, বহুমূত্র, স্বপ্নদোষ, অর্শ প্রভৃতি রোগ দূর করতে এই আসনটির বিকল্প হয় না । পেট ও কোমরের অপ্রয়োজনীয় মেদ হ্রাস করে শারীরিক গঠন সুন্দর করতে সাহায্য করে। এই আসনটির নিয়মিত অভ্যাস যে কোন বাত বা সায়টিকা রোগের হাত থেকে মুক্তি দেয় আর রোগ দেখা দিলেও তা অল্পদিনে সেরে যায়। 

ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখতে একটি সুষম খাদ্যাভাস এবং নিয়মিত যোগব্যায়াম অনুশীলন খুবই প্রয়োজন। রক্তচাপ এবং রক্তে শর্করার মাত্রা কমাতে যোগাসন বা ধ্যানমূলক আসন খুব কার্যকর। প্রতিদিন১০ মিনিটের নিয়মিত যোগব্যায়াম ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। ডায়াবেটিস রোগ, ডায়াবেটিস রোগের প্রতিকার, যোগাসন এবং ধ্যানমূলক আসন সম্পর্কে পড়ুন বেঙ্গলবাইটে।




পিডিএফ ডাউনলোড | Print or Download PDF File